পুলিশের উপর গুলি করে পালানোর ঘটনায় জড়িত সন্দেহে নগরীর চাষাঢ়ায় একটি ফ্ল্যাট বাসা থেকে পিস্তল, গুলি,ছোড়া সহ ৫ জনকে গ্রেফতার করেছে জেলা গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) পুলিশ। তারা হলো, বোরহানউদ্দিন,হোসেন আলী রাজন, সৈয়দ হাবিব হায়দার বাবু,সাজ্জাদুল হোসেন ও জাহাঙ্গীর হোসেন। এসময় তাদের কাছ থেকে ৭ পয়েন্ট ৬৫ বোরের পিস্তল, ১০ রাউন্ড গুলি, ১টি ম্যাগজিন ও ৮টি ছোড়া উদ্ধার করা হয়েছে। বুধবার (৩১ অক্টোবর) রাত সাড়ে ৭টায় শহরের উত্তর চাষাঢ়া এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

এ বিষয়ে (ডিবি) উপ পরিদর্শক সায়েম জানায়,গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে এদের গ্রেফতার করা হয়েছে। সম্প্রতি ফতুল্লার পাগলা মুন্সিখোলায় পুলিশের উপর গুলি করে পালানোর ঘটনায় জড়িত থাকতে পারে বলে আমরা ধারনা করছি। জেলা গোয়েন্দা পুলিশের পরিদর্শক মাসুদুর রহমানের নেতৃত্বে উপ পরিদর্শক আরিফুর রহমান, আবু সায়েম, সহকারী উপ পরিদর্শক আরিফুর রহমান ও সঙ্গীয় ফোর্স এ অভিযান পরিচালনা করেন। তাদের কাছ থেকে ১টি ৭ পয়েন্ট ৬৫ বোরের বিদেশী পিস্তল, ১টি ম্যাগজিন, ১০টি গুলি ও ৮টি ছোড়া উদ্ধার করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ২৩ অক্টোবর মঙ্গলবার দুপুর ১২টায় ফতুল্লার পাগলায় ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ পুরাতন সড়কের চেকপোস্টে ওই ঘটনায় গুলিবিদ্ধ হয় কনস্টেবল সোহেল মিয়া। ওই সময় যাত্রীবাহী বাসে পুলিশ সদস্যকে গুলি করে নিচে নামার পরেই মোটরসাইকেলে করে পালিয়ে যায় সন্ত্রাসীরা। ফলে মটরসাইকেলের সঙ্গে ওই সন্ত্রাসীদের যোগসাজশ ও সম্পৃক্ততা রয়েছে ধারণা করছে পুলিশ। সন্ত্রাসীদের লক্ষ্য করে পুলিশও কয়েক রাউন্ড গুলি ছুড়লেও তাদের ধরতে সক্ষম হয়নি। পুলিশের ধারণা পালিয়ে যায় সন্ত্রাসীরা অস্ত্রধারী সংঘবদ্ধ চক্রের সদস্য।

এদিকে সিসি ফুটেজে দেখা গেছে ৩ সন্ত্রাসী দৌড়ে যাচ্ছে। আর তাদের জন্য আগে থেকে একটি মোটরসাইকেল দাঁড়িয়ে ছিল অদূরে। চালকের মাথায় ছিল হেলমেট। তিনজন দৌড়ে ওই মোটরসাইকেলে উঠে যায়। পেছন থেকে পুলিশের একজন কনস্টেবল গুলি করছে। পরে ৪জন মিলে পালিয়ে যায়।