একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পরাজয়ের পর সংগঠন গোছানোর দিকে মন দিয়েছে বিএনপি। তৃণমূল থেকে সর্বস্তরে সম্মেলনের মাধ্যমে জনমতের ভিত্তিকে কমিটি করার কথা বললেও অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনগুলোর কমিটি করা হচ্ছে কেন্দ্র থেকে প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে।

দুদিন আগে জাতীয়তাবাদী চিকিৎসকদের সংগঠন ডক্টরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের কমিটি করার পর বুধবার ঘোষণা করা হয় জাতীয়তাবাদী মৎস্যজীবী দলের কমিটি। ১৫৪ সদস্যের আহ্বায়ক কমিটিতে একজন আহবায়ক ও একজন সদস্য সচিব করা হয়েছে। ২৩ জন যুগ্ম আহ্বায়ক করা ছাড়াও অন্যদের সদস্য করা হয়েছে।

এই কমিটিকে দ্রুত সময়ের মধ্যে পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠনের নির্দেশ দেয়া হয়েছে। বুধবার বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

নতুন কমিটিতে মুক্তিযোদ্ধা রফিকুল ইসলাম মাহতাবকে আহ্বায়ক করা হয়েছে। আব্দুর রহিমকে করা হয়েছে সদস্যসচিব।মৎস্যজীবী দলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মিলন মেহেদী নতুন কমিটিতে নেই।

কমিটির যুগ্ম আহ্বায়করা হলেন- নাদিম চৌধুরী, অধ্যক্ষ সেলিম মিয়া, জাকির হোসেন খান, মো. আজম প্রামাণিক, মো. ফারুক পাটওয়ারী, হাবিবুল হক হাবীব, সুলতান মাহমুদ সিদ্দিকী উল্লাস, জাহাঙ্গীর আলম সনি, সাইফুল ইসলাম রাশেদ, মো. লোকমান হোসেন হাওলাদার, কাজী মামুন-উল-হুদা, মো. শাহ আলম, তরিকুল ইসলাম মধু, গোলাম কিবরিয়া, রুস্তম মল্লিক, এম নাজিম উদ্দিন নাজিম, ফরিদ আহমেদ মানিক, কবির উদ্দিন, এ কে এম ওয়াদুদ , সাইদুল ইসলাম টুলু, কাজী কামাল উদ্দিন বাঁধন মিয়া, এম এ হান্নান, জহিরুল ইসলাম বাশার।

নবগঠিত কমিটির সদস্যরা হলেন- মো. নুরুল হক মোল্লা, মো. আমির হোসেন, হাজী শফিকুল ইসলাম রাসেল, কে এম রফিকুল ইসলাম রিপন, ডা. গোলাম সারোয়ার, তাওলাদ হোসেন শেখ, ফজর আলী লিটন, মো. কামাল উদ্দিন চৌধুরী, গাজী মোশারফ হোসেন, তোতা মিয়া, হুমায়ন কবির পাটওয়ারী, তবারক হোসেন, ইসমাইল হোসেন, কাজী রাকিবুল আহসান মহাব্বত, এম এ জি বাবুল, সাহাবুদ্দিন আহম্মেদ দুলাল, শেখ হেমায়েত হোসেন, হাজী আবু বকর ছিদ্দিক, মহিউদ্দিন শিকদার, অধ্যক্ষ মো. লোকমান হোসেন, সালেহ উদ্দিন শাহিন, রফিকুল ইসলাম, এইচ এম আবু সাইদ প্রমুখ।