নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব একেএম শামীম ওসমান বলেছেন,আমরা আওয়ামীলীগ করি কারো উপর ভরসা করে নয়। এক আল্লাহ্, এক শেখ হাসিনা আর পায়ের তলায় মাটি আছে জনতা,যারা আমাদের কথায় মাঠে নামে।

মঙ্গলবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) বিকালে ফতুল্লা থানাধীন বাংলা ভবনে এক কর্মী সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। আগামী ২রা মার্চ ডিআইটি মহাসমাবেশ সফল করার লক্ষ্যে ফতুল্লা থানা আওয়ামীলীগ ও সহযোগী সংগঠন এ সভার আয়োজন করে।

শামীম ওসমান বলেন, আমরা আবারও নারায়ণগঞ্জে মিটিং করতেছি,কেন? স্বাধীনতার শহীদদের সম্মান জানানোর জন্য। স্বাধীনতার দিবসের জন্য মিটিং করবো, এত ঢল ঢক্কর বাজানো দরকারটা কি? এত ঢল ঢক্কর এ কারনে যে,পিপলস্ কি চায়? এ ম্যাসেজটা সেই দিন আমরা জনগণকে দিতে চাই। কি ম্যাসেজ দিতে চাই? যে জনগণ,আওয়ামীলীগ তোমাদের সাথে আছে, তুমি ভোট দিলেও আছে না দিলেও আছে। কেন আছে? আমরা আওয়ামীলীগের প্রত্যেকটা কর্মী, আমরা মাঠে নামতাছি। উই ডোন্ট ডিপেন্ড অন দ্য পুলিশ। আমরা পুলিশের উপর নির্ভর করবো না। আমরা কারো উপরই নির্ভর করবো না, আমরা আমদের উপর নির্ভর করবো।

তিনি বলেন, কাদের নারায়ণগঞ্জ? এটা আমাদের নারায়ণগঞ্জ। নারায়ণগঞ্জকে সুন্দর করার জন্যে আমরা নারায়ণগঞ্জ প্রেসক্লাবকে ডাকবো, পেপার্স ওয়ানার্স এসোসিয়শনকে ডাকবো,সকল সাংবাদিকদের ডাকবো, বারকে ডাকবো,সকল ব্যবসায়ী ইউনিটকে ডাকবো। বাঁচলে সবাইকে নিয়েই বাঁচবো। মরলে,হয় মাসদাইর নয়তো পাইকপাড়া নয়তো যার যার এলাকার কবরস্থানে দাফন হইবো। সো এই জায়গা আমাদের। এটা আামদের নারায়ণগঞ্জ। কেউ আইসা এখানে সেভেন মার্ডার কইরা যাইবো,তার দায়দায়িত্ব আমরা নেবো না। আমরা আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির উন্নতি চাই কিন্তু ইয়াবা পকেটে ঢুকাইয়া কইবেন তোরে লইয়া যামুগা, তা হইতে দেবো না। ও হবে না। আমরা বুঝি সব কিছুই। ও হবে না।

তিনি বলেন, মানুষের জন্য কাজ করবো, সংগঠন গড়ব। মাঠ লেভেল থেকে প্রকৃত নেতাকর্মীদের উঠাইয়া নিয়া আসব এইবার। সবাইকে একসাথে নেতা বানানো যাবে না কিন্তু কর্মী সবাই একসাথে হতে পারব। আমরা সবাই একটা পরিবার,সবাই এক বংশ। সবাই ডাল-ভাত খেয়ে মিলেমিশে থাকব। যদি আমাদের এই পরিবারের ছোট একটা কর্মীর উপর আচর পরে তাহলে বুঝতে হবে সবার উপরে আচর পরেছে। সবাইকে একসাথে সেই আচরের জবাব দিতে হবে। সবাই ঐক্যবদ্ধ থাকব। আমরা পথ দেখাবো নারায়ণগঞ্জ চলবে। নারায়ণগঞ্জ পথ দেখাবো পুরো বাংলাদেশ চলবে।

তিনি আরও বলেন,জনগণকে আমাদের শান্তি দিতে হবে,জণগণের পাশে দাড়াতে হবে,জনগণকে ম্যাসেজ দিতে হবে যে,জনগণ আমরা আপনাদের একটি অংশ। জনগণ ভয় পাবেন না,আমরা জননেত্রী শেখ হাসিনার কর্মী। জনগণ ভয় পাবেন না,আমরা নারায়ণগঞ্জ আওয়ামীলীগ,আমরা ২ তারিখ ঘুষখোর, চাদাবাজ, ভূমিদস্যু,মাদকসহ সকল অপকর্মের বিরুদ্ধে নামার ঘোষণা দেব।

ফতুল্লা থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি এম সাইফউল্লাহ্ বাদলের সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন,বক্তাবলী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ফতুল্লা থানা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক শওকত আলী, মহানগর আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক শাহ্ নিজাম,সাংগঠনিক সম্পাদক জাকিরুল আলম হেলাল, জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মীর সোহেল আলী,মহানগর যুবলীগের সভাপতি শাহাদাৎ হোসেন সাজনু ভূইয়া প্রমূখ।