ফতুল্লার বক্তাবলীতে সামাজিক সংগঠন ‘আলোকিত বক্তাবলী’ আহবায়ক কমিটির অনুমোদনবিহীন কমিটি গঠনের ঘোষনা দেয়ায় অবৈধ কমিটি হিসাবে আখ্যায়িত করলেন সংগঠনের আহবায়ক কমিটি। সংগঠনের সাবেক সাধারন সম্পাদক আব্দুল আজিজের একক সিদ্ধান্তে মন গড়া কমিটি গঠন করে সাদা কাগজে লেখা কমিটির তালিকা তৈরি করে বিভিন্ন গনমাধ্যমে প্রেস বিজ্ঞপ্তি পাঠিয়ে সংগঠনের মধ্যে বিভাজন সৃষ্টি করেছে। কে বা কাহার মাধ্যমে কমিটির অনুমোদন দিয়েছে তা কারো কাছে বোধগম্য নয় বলে আহবায়ক কমিটির নেতৃবৃন্দরা জানিয়েছে। তবে গনতান্ত্রিক ভাবে অচিরেই সংগঠনের পূর্নাঙ্গ কমিটি ঘোষনা করে একটি গ্রহন যোগ্য কমিটি উপহার দিবে বলে জানিয়েছেন সংগঠনের আহবায়ক কমিটির আহবায়ক।

জানা গেছে, বিগত ৪/৫ বছর আগে সামাজিক সংগঠন আলোকিত বক্তাবলী নামক একটি সংগঠন গঠিত হয়। ঐ সময় এলাকার সর্বস্তরের জনগনের সম্মতিক্রমে সংগঠনের অগ্রযাত্রা শুরু হয়। আর সকলের সম্মতিক্রমে এড. আল আমীন সিদ্দিকীকে সভাপতি ও আব্দুল আজিজকে সাধারন সম্পাদক করে আলোকিত বক্তাবলীর কমিটি গঠন করা হয়। দীর্ঘদিন তাদের নেতৃত্বে সংগঠনের কার্যক্রম পরিচালিত হয়। সংগঠনের নতুন কমিটি গঠনের লক্ষ্যে চলতি মাসের ১১ তারিখে একটি আহবায়ক কমিটি গঠিত হয়। আর সেই আহবায়ক কমিটির অনুমোদন দেয় সংগঠনের সভাপতি ও সাধারন সম্পাদক এবং আলোকিত বক্তাবলীর উপদেষ্টা বক্তাবলী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শওকত আলী। আর আহবায়ক কমিটি নেতৃবৃন্দরা সংগঠনের কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে। কিন্তু হঠাৎ করে আহবায়ক কমিটির অনুমোদন ছাড়াই একটি কমিটি ঘোষনা করে গনমাধ্যমে প্রেস বিজ্ঞপ্তি পাঠিয়ে দেয়া হয় এবং সংবাদ প্রকাশও হয়। আর সংবাদ প্রকাশের পর সংগঠনের আহবায়ক কমিটির নেতৃবৃন্দরা কমিটি গঠন নিয়ে ভিন্নমত পোষন করে এবং অবৈধ কমিটি হিসাবে ঘোষনা করেছেন। আর মনগড়া কমিটি গঠনে করায় দুই পক্ষের মধ্যে বিভাজন সৃষ্টি করেছে এবং সংগঠনটি ভাঙ্গনের উপক্রম হয়ে পড়েছে।

আলোকিত বক্তাবলীর আহবায়ক কমিটির যুগ্ম আহবায়ক আবুল কালাম আজাদ জানান, কে বা কাহারা আলোকিত বক্তাবলীর কমিটি গঠন করেছে তা বোধগম্য নয়। যদি কেউ কমিটি ঘোষনা করে থাকে তাহলে সেই কমিটি হবে সস্পন্ন অবৈধ কমিটি। আলোকিত বক্তাবলীর আহবায়ক কমিটি গনতন্ত্র প্রক্রিয়ায় নতুন কমিটি ঘোষনা করা হবে।

আলোকিত বক্তাবলীর আহবায়ক কমিটির যুগ্ম আহবায়ক দেলোয়ার হোসেন জানান, সংগঠনের আহবায়ক কমিটিকে না জানিয়ে কে বা কাহারা কমিটি গঠন করে গনমাধ্যমে প্রকাশ করেছে তা যুক্তিসম্মত নয়। একটি সংগঠনের কমিটি গঠন করা নিয়ে যে ধরনের তামাশা সৃষ্টি করেছে তা হাস্যকর ব্যাপার। সংগঠনের সাবেক সাধারন সম্পাদক আব্দুল আজিজ আহবায়ক কমিটি কেউ না হওয়া সত্বেও একক সিদ্ধান্তে তার পছন্দের লোক দিয়ে কমিটি গঠন করেছে যা পুরোপুরি অবৈধ। তাই ঐ কমিটির কার্যক্রম করতে পারবে না। আমরা খুব শিগ্রই আলোকিত বক্তাবলীর কমিটি গঠন করে সবার গ্রহন যোগ্য একটি কমিটি উপহার দিবো।

আলোকিত বক্তাবলীর আহবায়ক কমিটির আহবায়ক মাশফীকুর রহমান শিশির জানান,
গনমাধ্যমে জানতে পেরেছি আলোকিত বক্তাবলীর কমিটি গঠন করা হয়েছে। কিন্তু
আমি সংগঠনের আহবায়ক হিসাবে কমিটির বিষয়ে কিছুই জানি না। এ কমিটি কিভাবে গঠন করলো আর কমিটির কে অনুমোদন দিয়েছে আমার বোধগম্য নয়। তাই আলোকিত বক্তাবলী কমিটি গঠন করা হয়েছে তা সস্পন্ন অবৈধ।
আহবায়ক কমিটির লোকজন বুজে শুনে গনতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় শিগ্রই পূর্নাঙ্গ কমিটি গঠন করে দায়িত্বপ্রাপ্তদের কাছে দায়িত্ব বুজিয়ে দেয়া হবে।

তিনি আরও জানান, আব্দুল আজিজ সংগঠনের সাবেক সাধারন সম্পাদক হওয়া সত্বেও আহবায়ক কমিটিকে কোন কিছুর তোয়াক্বা না করে পকেট কমিটি গঠন করে সংগঠনের মধ্যে বিভাজন সৃষ্টি করেছে। আর বতর্মানে সংগঠনের আহবায়ক কমিটির মাধ্যমে সংগঠনের কার্যক্রম চলছে এবং চলবে। আমরা খুব শিগ্রই আইনগত ভাবে সংগঠনের কমিটি গঠন করা হবে।